এক।। অধঃপতন না উত্তরণ

একি আজ তবে অধঃপতন না উত্তরণ
সেদিন রেস্তোরায় তরুণী এক দল
তাদের হতাশা নাকি তা কৌতূহল;
করছে মদ্য পান গদগদ চিত্তখানি
সে কি অধুনা বিলাস উল্লাস জানি
নাকি আমারই এখনও সেকেলে মন।

দুই।। কাক ডাকা ভোরে

ঐ কাক ডাকা ভোরে যেই গাত্রোত্থান
দেখতাম আকাশ বেয়ে ঐ বলাকারা
সারি বেঁধে যায় যেন তেপান্তরে তারা;
প্রায়শ: আজ শকুন চিল উড়ে গগনে
রক্তের আর লাশের গন্ধ যে সমীরণে
নেই আর ফুলে সৌরভ পাখির কলতান।

তিন।। ফুটপাতে

একি আজ তবে অধঃপতন না উত্তরণ
খবরের পাতা খুলতেই কান্নার ছবি
চাকায় পৃষ্ট নয় গুম কত মায়ের রবি;
বাঁচার তাগিদে কাজ কর্মে কচি শিশু
ফুটপাতে ঘুমায় মানুষ পাশে ঐ পশু
অর্থে বিলাস বুঝি কারো বা রক্ত বমন।

চার।। মানুষ কাঁদায় মানুষ

সর্বশ্রেষ্ঠ মানুষে কোথা আর ভালোবাসা
সেদিন দেখিনু দিশেহারা গো বাছুর
প্রসবিনী মা হারিয়ে বড়ই শোকাতুর;
সন্তান হারিয়ে কাতর এক কুকুর মা
দুধ দিতে আসে, শুনে মা ডাক হাম্বা
অথচ মানুষ কাঁদায় মানুষ,ছলনা নেশা।

Tagged with →  
Share →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *